সম্পাদকীয়

সম্পাদকীয়(সংস্কার: নভেম্বর-ডিসেম্বর 2021)মহামারী। প্যানডেমিক। করোনা কাল। করোনায় কেড়ে নিল প্রায় দু'টি বছরের চেয়েও বেশি সময়। ২০২০ সালে করোনাকালের লকডাউনের কথা স্মৃতি হয়ে আজও সমাজের প্রতিটি মানুষের মধ্যে.......

বিস্তারিত পড়ুন

আল-কুরআন

নভেম্বর-ডিসেম্বর2021(আয়াত নং: ১৯ থেকে ৩১)১৯. মহাকাশ এবং পৃথিবীতে যারাই আছে সবাই তাঁর। তাঁর কাছে যারা রয়েছে তারা তাঁর ইবাদতের ব্যাপারে অহংকার করে না এবং ক্লান্তিও বোধ করে না।২০. তারা তাঁর তসবিহ করে, রা.......

বিস্তারিত পড়ুন

আল-হাদীস

ওমর ইবনু খাত্তাব রা. হতে বর্ণিত আছে যে, রাসূলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম ইরশাদ করেছেন, তোমরা যদি আল্লাহ তায়ালার উপর এমনভাবে তাওয়াক্কুল করতে আরম্ভ কর যেমন তাওয়াক্কুলের হক রয়েছে তবে তোমাদেরকে.......

বিস্তারিত পড়ুন

আল্লামা মুহাম্মাদ আব্দুর রহীম রাহ.  এর ইন্তেকাল

গ্রন্থনাঃ মো. ফরিদ হোসাইন

 

১ অক্টোবর ঃ পাক-ভারত উপমহাদেশের ইসলামী আন্দোলনের পথিকৃত আল্লামা আব্দুর রহীম রাহ. ১৯১৮ সালের ২ মার্চ পিরোজপুর জেলার কাউখালী থানার শিয়ালকাঠি গ্রামের এক সম্ভ্রান্ত মুসলিম পরিবারে জন্মগ্রহণ করেন। তিনি ১৯৩৪ সাল থেকে শর্ষিণা আলিয়া মাদরাসায় পাঁচ বছর শিক্ষা লাভের পর ১৯৩৮ সালে কৃতিত্বের সাথে আলিম পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হন। পরে কলিকাতা আলিয়া মাদরাসা থেকে ১৯৪০ সালে ফাযিল এবং ১৯৪২ সালে কামিল প্রথম শ্রেণীতে পাশ করে ‘মুমতাজুল মুহাদ্দিসীন’ উপাধীতে ভূষিত হন। তিনি রাজনীতিতে প্রথমে জামায়াতে ইসলামীতে যোগ দিয়ে ১৯৫০ সালে পূর্ব পাকিস্তান জামায়াতে ইসলামীর সেক্রেটারী এবং ১৯৫৬ সালে প্রথম নির্বাচিত আমীরের দায়িত্ব গ্রহণ করেন। পরে তার সাথে জামায়াতে ইসলামীর নীতির বিরোধের কারণে তিনি ১৯৭৬ সালে বিভিন্ন দলকে নিয়ে ইসলামিক ডেমোক্রেটিক লীগ (আইডিএল) গঠন করে তার চেয়ারম্যান নির্বাচিত হন। তিনি ১৯৮৯ সালে জাতীয় সংসদ নির্বাচনে সংসদ সদস্য হন এবং আইডিএল এর পার্লামেন্টারী গ্রুপের নেতা হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন। ১৯৮২ সালে তিনি প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে প্রতিদ্বন্ধিতা করেন। শেষ জীবনে তিনি আইডিএল এর নাম পরিবর্তন করে ইসলামী ঐক্য আন্দোলন গড়ে তুলেন এবং শেষ পর্যন্ত তিনি এর আমীরের দায়িত্ব পালন করেন। ১৯৮৭ সালের ১ অক্টোবর তিনি ইন্তেকাল করেন। ইসলামের খিদমত এবং দেশের জন্য তিনি যে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রেখে গেছেন তার বিনিময়ে আল্লাহ যেন তাকে জান্নাতুল ফেরদাউস দান করেন। আমীন।